প্রকাশ : ৩১ আগস্ট, ২০১৮ ০৪:০৩:৩৭
কেশবপুরে মরা বটগাছের ডাল ভেঙ্গে ১০ ঘণ্টা বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন
বাংলাদেশ বাণী, কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি : কেশবপুর উপজেলার বেলোকাটি গ্রামে একটি ঝুঁকিপূর্ণ মরা বটগাছের ডাল ভেঙ্গে বিদ্যুতের তারের ওপর পড়ে প্রায় সময় আশপাশের ৫/৬ গ্রাম থাকে বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন। প্রায় প্রতিনিয়ত ওই গাছের ডাল বিদ্যুতের তারে পড়ে সংযোগ বিচ্ছিন্ন হওয়ার ঘটনা ঘটলেও এ যেন দেখার কেউ নেই। গত মঙ্গলবার বিকেলেও ওই গাছের ডাল ভেঙে তারের ওপর পড়লে এলাকাটি প্রায় ১০ ঘণ্টা বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। আতঙ্কে লোকজন  দিকবিদিক ছুটোছুটি করতে থাকে। এলাকাবাসি প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেও কোন সুফল পায়নি।

যশোরের কেশবপুর উপজেলার বেলোকাটি গ্রামের মোসলেম উদ্দিন মোড়লের বাড়ি সংলগ্ন সরকারি রাস্তার উপর প্রায় ২’শ বছর বয়সি একটি সরকারি বটগাছ ৪/৫ বছর আগে মারা গেছে। কিন্তু সরকারের দায়িত্বশীল কর্তারা দীর্ঘদিনেও গাছটি অপসারণ করেনি। ফলে মূল্যবান ওই গাছটি ভেঙেচুরে নষ্ট হয়ে যাচ্ছে।

গাছটি টেন্ডারের আওতায় আনলে সরকার রাজস্ব থেকে বঞ্চিত হতো না। বর্তমান এর ডাল ভেঙে প্রতিনিয়ত পাশ দিয়ে যাওয়া বিদ্যুৎ লাইনের ওপর পড়ছে। ফলে বিদ্যুতের তার ছিড়ে ওই এলাকার ৫/৬ গ্রাম প্রায় সময় থাকে বিদ্যুৎহীন। তাছাড়া বট গাছটির দু’পাশ দিয়ে দু’টি সড়ক চলে গেছে। এর একটি গড়ভাঙ্গা বাজার ও অপরটি কেশবপুর ভায়া পাঁজিয়া মেইন সড়কে মিশেছে।

এ গুরুত্বপূর্ণ রাস্তা দুটি দিয়ে প্রতিদিন শত শত হাটুরে ও পথচারীসহ যানবাহন চলাচল করে থাকে। মাঝেমধ্যে বিদ্যুতের তার ছিড়ে পড়লে আতঙ্কে জনসাধারণের চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। এলাকাবাসি গাছটি অপসারণের জন্যে জেলা প্রশাসক বরাবরে আবেদন করেও কোন সুফল পায়নি। এরপরও গত মঙ্গলবার বিকেলে পুনরায় ওই বটগাছের ডাল ভেঙে বিদ্যুতের তারের ওপর পড়লে সমস্ত রাত গ্রামগুলি অন্ধকার হয়ে পড়ে। গাছটি এ মুহূর্তে অপসারণ করা না হলে যে কোন সময় বড় ধরনের দূর্ঘটনার আশংকা করছেন এলাকাবাসি।

কেশবপুর পলী বিদ্যুতের ইঞ্জিনিয়ার আমিরুল ইসলাম বলেন, ওই গাছটি অপসারণ করা জরুরী হয়ে পড়েছে। প্রায় সময় ডাল ভেঙে তারের ওপর পড়ে ছিড়ে যাচ্ছে। তখন গ্রাহকদের সেবা দিতে রাত জেগে কাজ করতে হয়।   

এ ব্যাপারে পাঁজিয়া ইউপি চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম মুকুল বলেন, গাছটি সরকারি রাস্তার ওপর। বিষয়টি আমি কর্তপক্ষকে অবহিত করেছি। দুর্ঘটনা এড়াতে সংশিষ্ট ইউপি সদস্যকে ওই বটগাছের ঝুঁকিপূর্ণ ডালগুলি কেটে মাটিতে ফেলে রাখার কথা বলেছি।


 
সর্বশেষ সংবাদ
  • রাজধানীতে ট্রাফিক আইন ভঙ্গকারীদের বিরুদ্ধে ট্রাফিক বিভাগের অভিযানআগামী বুধবার পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) : পক্ষকালব্যাপী অনুষ্ঠানমালানাজমুল হুদার আপিল খারিজ করে বিচারিক আদালতে আত্মসমর্পণের নির্দেশঐক্যফ্রন্টে ফাঁটল ! তারেক জিয়া মুল নেতৃত্বে ড. কামাল কর্তৃত্বহীনভারতের পূর্বাঞ্চলীয় উপকূলে ঘূর্ণিঝড় গাজা'র আঘাতে মৃতের সংখ্যা ৩৩ জনতারেকের ভিডিও কনফারেন্সের বিষয়ে আইন পর্যালোচনা করে সিদ্ধান্ত নেবে ইসি কমিশন চায় না নির্বাচন প্রশ্নবিদ্ধ হোক : সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তাদের প্রতি ইসিনয়া পল্টনে পুলিশের ওপর অতর্কিত আক্রমণ ছিল পূর্ব পরিকল্পিত : ডিএমপি কমিশনার জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ৭-১০ দিন আগে মাঠে সেনা মোতায়েন থাকবে : ইসি সচিবঢাকা টেস্ট : জিম্বাবুয়েকে ২১৮ রানে বিধ্বস্ত করলো স্বাগতিক বাংলাদেশনির্বাচন পেছানোর আর সুযোগ নেই : ইসি সচিবকোন প্রার্থী যেন বঞ্চিত না হয় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে : সিইসিঢাকা টেস্ট : জয়ের জন্য বাংলাদেশের দরকার ৮ উইকেট দলীয় সরকারের অধীনে থেকে এবারের নির্বাচন ইতিহাস সৃষ্টি করবে : সিইসিজাতীয় সংসদ নির্বাচনের তারিখ পেছানোর সিদ্ধান্ত আজনতুন রাজনৈতিক জোট ‘জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট’ সংসদ নির্বাচনে অংশ নেবেজাতীয় সংসদ নির্বাচনে আ’লীগের দলীয় মনোনয়ন প্রথম দিনে ১৭শ’ সংগ্রহ ১৪ নভেম্বর মধ্যে নির্বাচনের প্রার্থীদের আগাম প্রচার সামগ্রী অপসারণের নির্দেশ ইসি’রইউপি সদস্য ও এসএসসি পরীক্ষার্থীসহ গণগ্রেফতার : ডিবি সদস্য আহত হওয়ায় পুরুষ শূন্য ঝিকরগাছার মাটিকোমরা গ্রামআজ থেকে আ’লীগের জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মনোনয়ন ফরম বিক্রি শুরু
  • রাজধানীতে ট্রাফিক আইন ভঙ্গকারীদের বিরুদ্ধে ট্রাফিক বিভাগের অভিযানআগামী বুধবার পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) : পক্ষকালব্যাপী অনুষ্ঠানমালানাজমুল হুদার আপিল খারিজ করে বিচারিক আদালতে আত্মসমর্পণের নির্দেশঐক্যফ্রন্টে ফাঁটল ! তারেক জিয়া মুল নেতৃত্বে ড. কামাল কর্তৃত্বহীনভারতের পূর্বাঞ্চলীয় উপকূলে ঘূর্ণিঝড় গাজা'র আঘাতে মৃতের সংখ্যা ৩৩ জনতারেকের ভিডিও কনফারেন্সের বিষয়ে আইন পর্যালোচনা করে সিদ্ধান্ত নেবে ইসি কমিশন চায় না নির্বাচন প্রশ্নবিদ্ধ হোক : সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তাদের প্রতি ইসিনয়া পল্টনে পুলিশের ওপর অতর্কিত আক্রমণ ছিল পূর্ব পরিকল্পিত : ডিএমপি কমিশনার জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ৭-১০ দিন আগে মাঠে সেনা মোতায়েন থাকবে : ইসি সচিবঢাকা টেস্ট : জিম্বাবুয়েকে ২১৮ রানে বিধ্বস্ত করলো স্বাগতিক বাংলাদেশনির্বাচন পেছানোর আর সুযোগ নেই : ইসি সচিবকোন প্রার্থী যেন বঞ্চিত না হয় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে : সিইসিঢাকা টেস্ট : জয়ের জন্য বাংলাদেশের দরকার ৮ উইকেট দলীয় সরকারের অধীনে থেকে এবারের নির্বাচন ইতিহাস সৃষ্টি করবে : সিইসিজাতীয় সংসদ নির্বাচনের তারিখ পেছানোর সিদ্ধান্ত আজনতুন রাজনৈতিক জোট ‘জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট’ সংসদ নির্বাচনে অংশ নেবেজাতীয় সংসদ নির্বাচনে আ’লীগের দলীয় মনোনয়ন প্রথম দিনে ১৭শ’ সংগ্রহ ১৪ নভেম্বর মধ্যে নির্বাচনের প্রার্থীদের আগাম প্রচার সামগ্রী অপসারণের নির্দেশ ইসি’রইউপি সদস্য ও এসএসসি পরীক্ষার্থীসহ গণগ্রেফতার : ডিবি সদস্য আহত হওয়ায় পুরুষ শূন্য ঝিকরগাছার মাটিকোমরা গ্রামআজ থেকে আ’লীগের জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মনোনয়ন ফরম বিক্রি শুরু
উপরে